বাইক ক্রয় সংক্রান্ত বিভিন্ন প্রশ্ন ও সেগুলোর সমাধান

বাইক নিয়ে সবার একটা অন্যরকম এক্সাইটমেন্ট । কোনটা কিনব , কোন মডেল ভাল হবে আমার জন্য , কোনটার ফিচার কী , মাইলেজ কেমন , এক্সেলেরেশন কেমন , স্ট্যাবিলিটি কেমন ? আরও অনেক টাইপের প্রশ্নই আছে । যাই হোক , ইগনোর করি । এতসব একসাথে কনসিডার করলে আপনাকে সুজুকি GSX-R ,হায়াবুসা বা হোন্ডা CBR1000R  কিনতে হবে ভাইয়া । তারপরেও আপনার ক্রাইটেরিয়া ফুলফিল হবে না । কারণ , একটা হার্লে ডেভিডসন আপনাকে যে টাইপের পারফরমেন্স দিবে , এগুলো সেটা দিবে না । মোটকথা , আপনার ক্রাইটেরিয়া অনুযায়ী কোন বাইক এই দুনিয়ায় নাই । ধ্রুব সত্য কথা । ভাইয়া , বাইকের অনেক ধরণ…

Review Overview

User Rating: 4.88 ( 5 votes)

বাইক নিয়ে সবার একটা অন্যরকম এক্সাইটমেন্ট । কোনটা কিনব , কোন মডেল ভাল হবে আমার জন্য , কোনটার ফিচার কী , মাইলেজ কেমন , এক্সেলেরেশন কেমন , স্ট্যাবিলিটি কেমন ? আরও অনেক টাইপের প্রশ্নই আছে । যাই হোক , ইগনোর করি ।

বাইক ক্রয় সংক্রান্ত বিভিন্ন প্রশ্ন ও সেগুলোর সমাধান

এতসব একসাথে কনসিডার করলে আপনাকে সুজুকি GSX-R ,হায়াবুসা বা হোন্ডা CBR1000R  কিনতে হবে ভাইয়া । তারপরেও আপনার ক্রাইটেরিয়া ফুলফিল হবে না । কারণ , একটা হার্লে ডেভিডসন আপনাকে যে টাইপের পারফরমেন্স দিবে , এগুলো সেটা দিবে না । মোটকথা , আপনার ক্রাইটেরিয়া অনুযায়ী কোন বাইক এই দুনিয়ায় নাই । ধ্রুব সত্য কথা । ভাইয়া , বাইকের অনেক ধরণ আছে , অনেক রকম ক্যাটাগরি আছে । একটার সাথে আরেকটা মিলবে না । পাবেন ও না । আর আপনি এমন কোন বাইক তৈরীও করতে পারবেন না যেটা একাধারে স্পোর্টস বাইক, ক্রুইজার, সুপারমটো, কম্যুউটার বা আরও অনেক কিছু । আপনাকে যেকোন একটা বা ২ টার কম্বো নিতে হবে সবোর্চ্চ । আর বাংলাদেশে যেসব বাইক পাওয়া যায় , সেগুলো আসলে এদের কোনটাই না সামান্য কয়েকটা বাদে ।

বাইক চয়েজের আগে ঠিক করেন , আপনার সবথেকে কোন প্রয়োজনে বাইকটি ইউজ করবেন । আপনার প্রয়োজনীয়তাগুলো প্রায়োরিটি অনুসারে সাজান । তারপর দেখুন , কোনটা নিলে আপনার সাথে পারফেক্টলি ম্যাচ করে । আপনি যদি চান যে , আপনি আপনার বাইক নিয়ে রেসিং করবেন আবার খুবই আরামদায়কভাবে লং রাইড করবেন , সেটাতো হবে না । আবার আপনি একদিকে মাইলেজ দেখবেন আবার এক্সেলেরশন ও দেখবেন , সেটাও হবে না ।

একেকটা টাইপের বাইক ম্যানুফ্যাকচার হয় একেকটা এইম নিয়ে । সেটাতেই সেই টাইপের বাইকের যথেষ্ঠ পারফেক্টশন আছে । বাট , অন্যান্য সাইডে পারফেক্টশন কনসিডার করলে কোন বাইকই ভাল হবে না । এটাই রিয়েলিটি ।

এমনকী আপনি যদি আরেকটু ডিপে যান , তাহলে আপনি দেখতে পাবেন , ২ টা বাইকের সবই সেইম, ধরলাম স্পোর্টস বাইক,  বাট একটা থেকে ভাল এক্সেলেরেশন পাচ্ছেন , আরেকটাতে টপ স্পীড । এইটাই ফ্যাক্ট । You Have To বুঝতে হবে । বাইক কেনার আগে বাইক নিয়ে একটা ছোটখাট গবেষণা করান । কারণ , এটা একটা অত্যান্ত শখের জিনিস । একবার কিনে আফসোস করবেন না ।

একটা বাইক ম্যানুফ্যাকচার কোম্পানী যথেষ্ঠ ভাল ইন্জিনিয়ার দিয়ে ও তাদের মার্কেটিং পলিসি অনুসরণ করেই বাইক মার্কেটে রিলিজ করে । সো , এটা ফল করলে তাদের মাথা ব্যাথাই বেশী থাকা উচিৎ আপনার থেকে । এখন আপনি যদি একটা পালসার বাইক থেকে ভাল এ্যারোডাইনামিক্স চেয়ে বসেন , সেটা তো একটা অন্য গ্রহের চিন্তাভাবনার মতই দেখাবে । আপনার এ্যারোডাইনামিক্স, ফেয়ারিং লাগলে জিক্সার, হোন্ডা, CBR, ইয়ামাহা R15  চয়েজ করতে পারেন । আর যদি মিডিয়াম পারফরমেন্স চান , তাহলে যেকোন ভাল কোম্পানীর ১৫০সিসি সেগমেন্টের বাইকই ভাল ।

স্পোর্টস বাইকের কাজ হল মূলত ফাস্ট এক্সেলেরেশন , ডাইনামিক কন্ট্রোল এইগুলো । আবার ক্রুইজার নিয়ে আপনি রিল্যাক্সে লং রাইডে যেতে পারেন । কোন মাজা ব্যাথা টাইপের কিছু হবে না । আরামদায়ক জার্নি । এখন কেউ যদি বলে , এই দুইটা আমার একসাথে চায় , সেটা হয়তবা অনেকটা ইমপ্লিমেন্ট করা পসিবল , বাট ১০০% না ।

এক্সেলেরেশনের বস হল মূলত হালকা টাইপের সুপারমটো । বাট , এটার এই এক্সেলেরেশন গেইন করার জন্য এর বডি অত্যান্ত হালকা হতে হয় । ফলে ফেয়ারিং আশঅ করা যাবে না স্বাভাবিক ভাবে । বাট বস এক্সেলেরেশন পাবেন । ওভারটেকিং তো খুবই ইজি সুপারমটো নিয়ে । বাট , বাতাস আপনাকে টপ স্পীডে হেভী পেইন দিবে । আরামে লং টাইম রাইড করতে পারবেন না ।

আসলে একটা বাইক হুট করে কেনার আগে আমাদের সবার জানা উচিৎ , বাইকে পেট্রোল অথবা অকটেন দিলে সেটা কেমনে টায়ারে ঘূর্ণণ সৃষ্টি করে । এটা জানলে আপনার আর কোন প্রশ্ন করা লাগবে না এইসব বিষয়ে আশা করি । একটু কষ্ট করুন । নাহলে ভাল জিনিস কেমনে পাবেন ?

অনেক উদাহরণই তো দিলাম । আবার পরে একসময় লিখব । আরও ডিটেইলসে লেখার ইচ্ছা ছিল । বাট , এখন পারলাম না । পরে একসময় ইন ডিটেইলস লিখব ।

সবাইকে ধন্যবাদ । Best Wishes ………………….

লেখক : Arindam Paul

About শুভ্র সেন

সবাইকে শুভেচ্ছা । আমি শুভ্র,একজন বাইকপ্রেমী । ছোটবেলা থেকেই মোটরসাইকেলের প্রতি আমার তীব্র আগ্রহ রয়েছে । যখন আমি আমার বাড়ির আশেপাশে কোন মোটরসাইকেলের ইঞ্জিনের শব্দ শুনতে পেতাম, আমি তৎক্ষণাৎ মোটরসাইকেলটি দেখার জন্য ছুটে যেতাম ।২ বছর ধরে গবেষণা ও পরিকল্পনার পর আমি এই ব্লগটি তৈরী করি । আমার লক্ষ্য হল বাইক ও বাইক চালানো সম্পর্কে বাংলাদেশের মানুষের কাছে সঠিক তথ্য পৌঁছে দেয়া । সবসময় নিরাপদে বাইক চালান । আপনার বাইক চালানো শুভ হোক

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Sign up to our newsletter!


error: সকল লেখা সুরক্ষিত !!