রানার মোটরসাইকেল এখন অফিশিয়ালি নেপালে

রানার মোটরসাইকেল এখন অফিশিয়ালি নেপালে পাওয়া যাবে। তারা নেপালের বাজারে ৭টি মডেল নিয়ে তাদের যাত্রা শুরু করেছে। রানার অটোমোবাইল লিমিটেড প্রথম এবং একমাত্র বাংলাদেশী কোম্পানি যারা নেপালে মোটরসাইকেল রপ্তানি করা শুরু করেছে। নেপালে রানার রামান মোটরস এর মাধ্যমে তাদের মোটরসাইকেল গুলো ডিস্ট্রিবিউট করবে। এখন পর্যন্ত তারা ১০টি ডিলারশীপ পয়েন্ট করেছে এবং ভবিষ্যতে আরো ২০টির মত ডিলারশীপ শো-রুম ও সার্ভিস সেন্টার খোলা হবে। রানার মুলত ৮০-১৫০সিসি মোটরসাইকেলের মার্কেটিং করবে বা রপ্তানি করবে। তবে বিষয় হচ্ছে নেপালে বাংলাদেশের মত কোন সিসি লিমিটেশন নেই। নতুন এই মোটরসাইকেল গুলো উদ্বোধন করেন রানার গ্রুপের চেয়ারম্যান মিস্টার হাফিজুর রহমান, এমডি ও সিইও রানার অটোমোবাইল মুকেশ শর্মা…

Review Overview

User Rating: Be the first one !

রানার মোটরসাইকেল এখন অফিশিয়ালি নেপালে পাওয়া যাবে। তারা নেপালের বাজারে ৭টি মডেল নিয়ে তাদের যাত্রা শুরু করেছে। রানার অটোমোবাইল লিমিটেড প্রথম এবং একমাত্র বাংলাদেশী কোম্পানি যারা নেপালে মোটরসাইকেল রপ্তানি করা শুরু করেছে।

নেপালে রানার রামান মোটরস এর মাধ্যমে তাদের মোটরসাইকেল গুলো ডিস্ট্রিবিউট করবে। এখন পর্যন্ত তারা ১০টি ডিলারশীপ পয়েন্ট করেছে এবং ভবিষ্যতে আরো ২০টির মত ডিলারশীপ শো-রুম ও সার্ভিস সেন্টার খোলা হবে। রানার মুলত ৮০-১৫০সিসি মোটরসাইকেলের মার্কেটিং করবে বা রপ্তানি করবে। তবে বিষয় হচ্ছে নেপালে বাংলাদেশের মত কোন সিসি লিমিটেশন নেই।

রানার মোটরসাইকেল

নতুন এই মোটরসাইকেল গুলো উদ্বোধন করেন রানার গ্রুপের চেয়ারম্যান মিস্টার হাফিজুর রহমান, এমডি ও সিইও রানার অটোমোবাইল মুকেশ শর্মা এবং  সিইও রামান মোটরস মিস্টার রামান মাহাটো উপস্থিত ছিলেন। এই প্রতিযোগীতা পূর্ন মার্কেটে রানার অটোমোবাইল মাইলেজ ও স্পেয়ার্স পার্টস এর এভেইলেবল হবে অন্যান্যদের থেকে।

রানার মোটরসাইকেল লিমিটেড বাংলাদেশের অন্যতম এবং সবচেয়ে বড় মোটরসাইকেল কোম্পানি। তাদের প্রায় ২০০ মত ডিলার রয়েছে সারা বাংলাদেশে। আর রানারের ফ্যাক্টরি ময়মনসিংহে অবস্থিত। রানার ৭টি মডেল নেপালে লঞ্চ করতে যাচ্ছে। সেই ৭টি মডেল হলোঃ

  1. Bike RT.
  2. AD 80 Deluxe.
  3. Kite +
  4. Cheetah
  5. Royal +
  6. Bullet
  7. Knight Rider.

runner motorcycles nepal

রামান মোটরস এও ঘোষনা করেছে যে নেপালে তারা হায়ার সিসির মোটরসাইকেল তৈরি করবে রানারের কাছ থেকে। রানার তাদের মোটরসাইকেলে ৬ বছরের ওয়ারেন্টি দিচ্ছে। যদিও তাদের বেশির ভাগ বাইক ৮০-১৫০সিসির। যদিও রামান মোটরস ভবিষ্যতে আরো হায়ার সিসির মোটরসাইকেল তৈরি করবে বলে ঘোষনা দিয়েছে।

রামান মোটরস প্রথম বছরে ২% মার্কেট শেয়ার নির্ধারন করেছে রানার মোটরসাইকেলের জন্য। তারা আরও প্ল্যান করছ যে নেপালে রানার মোটরসাইকেল  ম্যানুফ্যাকচার করবে। রানার মোটরসাইকেল ডিসম্বর ২০১৭ মাসে বাংলাদেশে উইন্টার কার্নিভাল অফার দিয়েছে। আর এই অফারটির ডিসকাউন্ট ছিল ৮০০০-১০০০০/- টাকার মধ্যে।

runner motorcycles price in nepal

রানার মোটরসাইকেল এখন অফিশিয়ালি এভেইলেবল হবে নেপালে। আর এটা বাংলাদেশী বাইকারদের জন্য অন্যতম গর্বের বিষয়। আর এখন পর্যন্ত কোন বাংলাদেশী কোম্পানীর এটাই প্রথম বিদেশে মোটরসাইকেল রপ্তানীকারক প্রতিষ্ঠান। যারা নেপালে তাদের মোটরসাইকেল রপ্তানি করতে যাচ্ছে। আশা করা যায় ভবিষ্যতে তারা সাব কন্টিনেন্টের অন্যান্য দেশ গুলোতেই তাদের তৈরি মোটরসাইকেল রপ্তানি করবে।

About Arif Raihan opu

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*